Skip to content

প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম ২০২৩

প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম

প্রিয় পাঠক বন্ধুগণ আপনাদের সকলকে সহায়তা করার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে আজকে নিয়ে এসেছি নতুন একটি পোস্ট। আমাদের আজকের পোস্টটি হচ্ছে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম সম্পর্কিত একটি পোস্ট। অর্থাৎ আমাদের আজকের এই পোস্টের মাধ্যমে আমরা আপনাদেরকে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার সকল ধরনের নিয়ম সম্পর্কে জানাবো। আপনারা আমাদের আজকের এই পোস্টটি থেকে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম গুলো সংগ্রহ করে আপনি সহজেই প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করতে পারবেন। আপনারা আমাদের আজকের এই পোস্ট থেকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্যগুলো সংগ্রহ করে আপনি প্রিপেইড মিটার রিচার্জ সম্পর্কিত সকল ধরনের তথ্য জানতে পারবেন। এক্ষেত্রে আমরা আপনাদেরকে সকল ধরনের তথ্য দিয়ে সহায়তা করব। আশা করি আমাদের আজকের এই পোস্টটি আপনাদের কাজে লাগবে।

বৈদ্যুতিক মিটার হলো এমন এক ধরনের মিটার যেখানে বিদ্যুৎ পরিমাপ করা হয়। আর প্রিপেইড মিটার হল এমন এক ধরনের বৈদ্যুতিক পরিমাপক মিটার বা যন্ত্র যেখানে বিদ্যুৎ পরিমাপের আগেই মিটারে টাকা রিচার্জ করতে হয়। এই মিটারে রিচার্জ করার পরেই বিদ্যুৎ ব্যবহার করার অনুমতি বা অনুমোদন প্রদান করা হয়। অর্থাৎ যে মিটারে পূর্বে অর্থ প্রদান করে বিদ্যুৎ ব্যবহার করা হয় তাকেই প্রিপেইড মিটার বা বৈদ্যুতিক প্রিপেইড মিটার বলা হয়। এটি এমন এক ধরনের মিটার যেখানে টাকা বা রিচার্জ শেষ হওয়ার সাথে সাথেই সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। সংযোগ বিচ্ছিন্ন হওয়ার আগে এই মিটারে সংকেতবার্তা প্রদান করা হয়। যার মাধ্যমে ব্যবহারকারীকে অবশ্যই নতুন করে রিচার্জ করার ব্যাপারে সতর্কবার্তা প্রদান করা হয়।

প্রিপেড মিটারে রিচার্জ শেষ হওয়ার আগ মুহূর্ত মিটার টি বেশ কয়েকটি সতর্কবার্তা প্রদান করে থাকে। এরপর রিচার্জ পুরোপুরি শেষ হয়ে গেলে মিটারটি সংযোগ বন্ধ করে দেয়। তবে প্রিপেইড মিটারটির একটি অন্যতম সুবিধা হল এটি সাপ্তাহিক ছুটির দিন অথবা সরকারি ছুটির দিনগুলো তো সকল দশটা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত রিচার্জ না থাকলেও বিদ্যুৎ সংযোগ বন্ধ করে না। এই সময়টিতে মিটারটি ক্রেডিট বিদ্যুৎ ব্যবহার করে যা রিচার্জের পরে মিটার টি নিজে নিজে সমন্বয় করে নেয়। বর্তমান সময় বাংলাদেশের অধিকাংশ অঞ্চলেই প্রিপেইড মিটার চালু করা হয়েছে। যার মাধ্যমে বিদ্যুৎ বিল প্রদানের কোনো রূপ ঝামেলা ছাড়াই গ্রাহকগণ নিজেই রিসার্চ করে বিদ্যুৎ ব্যবহার করে থাকে।

প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম

বর্তমান সময় বাংলাদেশের অধিকাংশ অঞ্চলে প্রিপেইড মিটার ব্যবস্থা চালু করা হয়েছে যেখানে বিদ্যুৎ ব্যবহারকারীগণ বিদ্যুৎ ব্যবহারে পূর্বেই মিটারের রিচার্জ করে বিদ্যুৎ ব্যবহার করে থাকেন। প্রিপেইড মিটারের মাধ্যমে বিদ্যুৎ ব্যবহারকারীকে আর বিদ্যুৎ অফিসে গিয়ে বিদ্যুৎ বিল জমা দিতে হয় না। এটি একটি সহজ ব্যবস্থা। অনেকে অনলাইনে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়মগুলো সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে জানার জন্য অনুসন্ধান করে থাকে। তাদের কে সঠিক তথ্য তুলে ধরার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে আজকে নিয়ে এসেছি প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার সকল নিয়ম। আমাদের আজকের এই পোস্ট থেকে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম গুলো সংগ্রহ করলে আপনারা সহজে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করতে পারবেন। আমাদের আজকের এই পোস্ট থেকে তথ্যগুলো সংগ্রহ করে আপনার এলাকার পরিচিত সকলের মাঝে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম গুলো জানাতে পারবেন। নিচে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম গুলো তুলে ধরা হলো:

বিকাশ থেকে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করার নিয়ম

  • বিকাশ অ্যাপের মাধ্যমে প্রিপেইড মিটার রিচার্জ করতে, প্রথমে অ্যাপটিতে লগইন করুন
  • বিকাশ অ্যাপ স্ক্রীন থেকে “পে বিল” নির্বাচন করুন
  • তারপর “ইলেক্ট্রিসিটি” নির্বাচন করুন
  • বিদ্যুৎ সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানের নাম (কোম্পানি) নির্বাচন করুন
  • অ্যাকাউন্ট নম্বর এবং যোগাযোগ নম্বর লিখুন
  • এখন রিচার্জের পরিমাণ লিখুন
  •  আপনার বিকাশ পিন নম্বর দিয়ে ‘পে বিল’ সম্পূর্ণ করুন
  • আপনি সহজেই অ্যাপে বিলের রিসিপ্ট পাবেন
  • প্রিপেইড মিটারের বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের কিছুক্ষণের মধ্যে প্রাপ্ত SMS এর মাধ্যমে আপনি একটি টোকেন নম্বর পাবেন
  • আপনি যদি উক্ত SMS এর মাধ্যমে টোকেন নম্বর না পেয়ে থাকেন, তাহলে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে মিটার নম্বরটি লিখে 04445616247 নম্বরে একটি মেসেজ পাঠান। ফিরতি SMS এর মাধ্যমে আপনি আপনার টোকেন নম্বর পাবেন।
  • আপনার মিটারে এই টোকেন নম্বরটি প্রবেশ করালে, মিটারে বিদ্যুতের বিল আপডেট হয়ে যাবে।

Comment Here