দর্শনীয় স্থান

বাংলাদেশের দর্শনীয় স্থান মিয়াবাড়ি জামে মসজিদ [বরিশাল]

বাংলাদেশের দর্শনীয় স্থান মিয়াবাড়ি জামে মসজিদঃ বরিশাল সদরের উত্তর কড়াপুর গ্রামে মিয়াবাড়ি জামে মসজিদটি অবস্থিত। বরিশাল জেলায় অবস্থিত প্রাচীন মসজিদগুলোর মধ্যে অন্যতম একটি হলো কড়াপুর মিয়াবাড়ি মসজিদ। মনে করা হয়ে থাকে ১৮শ শতকে এই মসজিদটি নির্মাণ করা হয়। সাম্প্রতিককালে কড়াপুর মিয়াবাড়ি মসজিদটি রঙ এবং মেরামত করা হয়েছে। এ কারনে এই মসজিদটির প্রাচীন বৈশিষ্ট্যগুলো অনেকটা বিলীন হয়ে গিয়েছে। উঁচু বেসম্যাণ্টের উপর এই কড়াপুর মিয়াবাড়ি মসজিদটি নির্মাণ করা হয়েছে।

নীচতলায় বেসম্যাণ্টের অভ্যন্তরে কয়েকটি কক্ষ রয়েছে যেগুলো মসজিদের নিকটে অবস্থিত মাদ্রাসার ছাত্রদের থাকার কাজে ব্যবহার করা হচ্ছে। মসজিদে প্রবেশ করার জন্য দোতলায় একটি প্রশস্ত সিঁড়ি রয়েছে। আয়াতক্ষেত্রাকার এই মসজিদটির উপরিভাগে তিনটি ছোট আকারের গম্বুজ রয়েছে যেগুলোর মধ্যে মাঝখানের গম্বুজটি অন্য দুটি গম্বুজের চেয়ে আকারে কিছুটা বড়।

কড়াপুর মিয়াবাড়ি মসজিদের সামনের দেয়ালে চারটি মিনার এবং পেছনের দেয়ালে চারটি মিনার সমেত মোট আটটি মিনার রয়েছে। এছাড়া কড়াপুর মিয়াবাড়ি মসজিদের পূর্বদিকে একটি বিশালাকারের পুকুর রয়েছে।

Tourist places of Bangladesh Miyabari Jami Mosque

কিভাবে যাবেন মিয়াবাড়ি জামে মসজিদঃ

বাসে বা সড়ক পথে বরিশালঃ

সড়কপথে ঢাকা থেকে বরিশাল আপনি ৬ থেকে ৮ ঘণ্টায় পৌঁছে যাবেন। প্রতিদিন ভোর ৬ টা থেকে রাত ১০ টা পর্যন্ত গাবতলি বাস টার্মিনাল থেকে বেশকিছু বাস বরিশালের উদ্দেশে ছেড়ে যায়। বেশীরভাগ বাস পাটুরিয়া ঘাট অতিক্রম করে বরিশালে যায় আবার কিছু কিছু বাস মাওয়া ঘাট অতিক্রম করে বরিশালে যায়। ঢাকা থেকে আগত বাসগুলো বরিশালের নতুল্লাবাদ বাস স্ট্যান্ডে থেমে থাকে।

ঢাকা থেকে বরিশালে চলাচলকারী বাসগুলোর মধ্যে আছেঃ

  • শাকুরা পরিবহন, ফোনঃ ০১১৯০৬৫৮৭৭২, ০১৭২৯৫৫৬৬৭৭
  • ঈগল পরিবহন, ফোনঃ ০২-৯০০৬৭০০
  • হানিফ পরিবহন, ফোনঃ ০১৭১৩০৪৯৫৫৯

বাস ভাড়াঃ

  • এসি বাসের ভাড়াঃ ৭০০/- টাকা
  • নন এসি বাসের ভাড়াঃ ৫০০/- টাকা
  • লোকাল বাসের ভাড়াঃ ২৫০ টাকা থেকে ৩০০/- টাকা।

Tourist places of Bangladesh Miyabari Jami Mosque

নৌপথে বা লঞ্চে বরিশালঃ

ঢাকা থেকে বরিশাল এর লঞ্চগুলো রাত ৮টা থেকে ৯টার মধ্যে সদর ঘাট থেকে ছাড়ে। এর মধ্যে সুন্দর বন ৭/৮, সুরভী৮, পারাবত ১১, কীর্তনখোলা ১/২ লঞ্চ গুলো ভাল। লঞ্চ গুলো বরিশাল পৌঁছায় ভোর ৫টার দিকে।

লঞ্চ ভাড়াঃ

ডেক ভাড়া ১৫০ টাকা, ডাবল কেবিন ১৬০০, ভিআইপি ৪৫০০।

বরিশাল পৌছানোর পরে শহরের হাতেম আলী কলেজ চৌমাথা থেকে ব্যাটারী চালিত অটো নিয়ে একদম সোজা মিয়াবাড়ি মসজিদ।

কোথায় থাকবেনঃ

বরিশালে থাকার জন্য বেশকিছু আবাসিক হোটেল রয়েছে।

  1. হোটেল প্যারাডাইজ টু ইন্টারন্যাশনাল, ফোনঃ +৮৮-০১৭১৭০৭২৬৮৬, +৮৮-০১৭২৪৮৫৩৫৯০
  2. হোটেল গ্র্যান্ড প্লাজা, ফোনঃ +৮৮-০১৭১১৩৫৭৩১৮, +৮৮-০১৯১৭৪৫৮০৮৮
  3. হোটেল এথেনা ইন্টারন্যাশনাল, ফোনঃ +৮৮-০৪৩১-৬৫১০৯, +৮৮-০৪৩১-৬৫২৩৩
  4. হোটেল হক ইন্টারন্যাশনাল, ফোনঃ +৮৮-০১৭১৮৫৮৭৬৯৮

আলমিনারা আক্তার লোপা

আমি আলমিনারা আক্তার, সবাই লোপা বলেই চিনে। আমি রাজশাহী মহিলা পলিটেকনিক ইন্সটিটিউট থেকে কম্পিউটার প্রযুক্তি তে ডিপ্লোমা ইন ইঞ্জিনিয়ারিং শেষ করি। আমি লিখতে পছন্দ করি। বাংলাদেশ, বাংলাদেশের ঐতিহ্য, শিক্ষা, প্রযুক্তি, চাকুরি, টেলিযোগাযোগ এবং ভ্রমন নিয়ে লিখি। এছাড়াও চলমান যেকোন বিষয়ে লিখতে আমার ভালো লাগে। লেখাই আমার প্রথম শখ।
Back to top button
Close